শুক্রবার, আগস্ট ৭, ২০২০

যে ৫ খাবারে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কমে

  • অনলাইন ডেস্ক
  • ২০২০-০৭-১৬ ২১:৫৬:২৫
image

বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাইরাস প্রতিরোধে এখন পর্যন্ত কোনও ভ্যাকসিন আসেনি। তাই এই প্রাণঘাতী ভাইরাসটি থেকে বাঁচতে প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানোর কথা বলে আসছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা। শরীরে প্রতিরোধ ক্ষমতা কমে গেলে এমনিতেই নানা রোগে চেপে ধরে। তারমধ্যে আবার চারদিকে ছড়াচ্ছে প্রাণঘাতী ভাইরাসের সংক্রমণ। তাই এই সময়ে সুস্থ থাকতে হলে শরীরে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতেই হবে।

কিন্তু অনেকে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা গিয়ে সামনে যে খাবারদাবার পান তাই খেয়ে থাকেন। তবে সব খাবারই কিন্তু পুষ্টিকর নয়, কিছু কিছু খাবার আছে যেগুলো শরীরে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কমায়। এর মধ্যে পাঁচটি খাবার বিশেষভাবে উল্লেখযোগ্য। 

আরো পড়ুন- গভীর রাতে দুই মৎস্যজীবীকে বিবস্ত্র করে নির্যাতনের অভিযোগ ওসির বিরুদ্ধে

এবার জেনে নিন যে পাঁচ ধরনের খাবার খেলে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কমে....

মিষ্টি

পুষ্টিবিদ ও বিশেষজ্ঞদের মতে, অতিরিক্ত পরিমাণে মিষ্টি বা ওই জাতীয় খাবার শরীরের প্রতিরোধ ক্ষমতাকে দুর্বল করে দিতে পারে। মিষ্টি জাতীয় খাবার অতিরিক্ত খাওয়ার ফলে ডায়াবেটিসের ঝুঁকিও বেড়ে যেতে পারে। বেড়ে যেতে পারে ওজনও। আর ওজন বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে একাধিক স্বাস্থ্য সমস্যার ঝুঁকিও বেড়ে যাবে। যা করোনাকালীন সময়ে একদমই ঠিক নয়।

লবণ

মিষ্টির মতো অতিরিক্ত লবণ খাওয়ার অভ্যাসও শরীরের জন্য অত্যন্ত ক্ষতিকর! অতিরিক্ত মাত্রায় লবণ খেলে বাড়ে রক্তচাপ। এই অভ্যাসের ফলে একাধিক স্বাস্থ্য সমস্যা মাথা চাড়া দিতে পারে। বাড়ে হার্ট অ্যাটাক, স্ট্রোকের ঝুঁকিও! অন্তত এমনটাই জানাচ্ছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা। শুধু তাই নয়, অতিরিক্ত লবণ খাওয়ার অভ্যাস শরীরের প্রতিরোধ ক্ষমতাকে দুর্বল করে দিতে পারে। 

মদপান

যারা নিয়মিত মদ্যপান করেন তাদের শরীরের প্রতিরোধ ক্ষমতা আর পাঁচজন সাধারণ মানুষের চেয়ে অনেকটাই কম। এই বদ অভ্যাসটি করোনার এই সময়ে ছাড়তে হবে, নয়তো বেড়ে যেতে পারে আপনার স্বাস্থ্যের ঝুঁকি। 

ক্যাফেইন

অতিরিক্ত মাত্রায় ক্যাফিন জাতীয় পানীয় পানের অভ্যাস শরীরের প্রতিরোধ ক্ষমতাকে দুর্বল করে দিতে পারে। অতিরিক্ত পরিমাণে চা, কফি পানের অভ্যাস ঘুমের ব্যঘাত ঘটায়। পর্যাপ্ত ঘুমের অভাবে হজমের সমস্যাসহ একাধিক স্বাস্থ্য সমস্যার ঝুঁকি বেড়ে যেতে পারে।

অ্যানার্জি ড্রিংক

অতিরিক্ত মাত্রায় সোডা বা এনার্জি ড্রিঙ্ক পানের অভ্যাস শরীরের প্রতিরোধ ক্ষমতাকে দুর্বল করে। বিশেষজ্ঞদের মতে, সোডা বা এনার্জি ড্রিঙ্ক পানের অভ্যাস স্বাস্থ্যের উপর বিরূপ প্রভাব ফেলে, দুর্বল করে দেয় স্বাভাবিক হজম ক্ষমতা। আর এই হজমের সমস্যা থেকে স্বাস্থ্যে একাধিক রোগ দেখা দিতে পারে বলে মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা।

 

আরো পড়ুন- করোনার উপসর্গহীন রোগীদের সর্বনাশ ভিতরে ভিতরে!‌

 

 

এশিয়ান টাইমস্/এমজেডআর


এ জাতীয় আরো খবর